আউটসোর্সিং এ ১০০% কাজ পাওয়ার কিছু সহজ এবং কার্যকরী কৌশল ।

আউটসোর্সিং এ ১০০% কাজ পাওয়ার কিছু সহজ এবং কার্যকরী কৌশল ।

বর্তমান যুগে ফ্রীল্যান্সিং শব্দটি আমাদের সবার কাছে খুব পরিচিত। একজন ফ্রীল্যান্সার তখনি সফল হন যখন তিনি

অনলাইন মার্কেটপ্লেসে খুব সহজেই কাজ দেওয়া-নেওয়া করতে পারেন। ইন্টারনেটে আউটসোর্সিংয়ের কাজ দেওয়া-নেওয়ার

ওয়েবসাইটটি হল অনলাইন মার্কেটপ্লেস। মুক্ত পেশাজীবিরা (ফ্রিল্যান্সার) এসব সাইট থেকে কাজ নিয়ে থাকেন। অনলাইন

মার্কেটপ্লেসে সহজে কাজ পাওয়ার কিছু পদ্ধতি রয়েছে। যেগুলো জানা থাকলে খুব সহজেই অনলাইন মার্কেটপ্লেসে কাজ

পাওয়া যায়। আসুন জেনে নেই এই পদ্ধতি গুলো কি কি-

 

১.বিড

অনেকে আছেন, যারা চার-পাঁচটা কাজের জন্য আবেদন বা বিড করেই কাজ পেয়ে যান। আবার অনেকে আছেন, যারা

১০০টারও বেশি কাজের আবেদন করেও কাজ পান না। এটা অনেকটা নির্ভর করে আপনি কত কম অর্থে কাজটি করে

দেওয়ার জন্য আবেদন করেছেন তার উপর।

 

২. পেমেন্ট মেথড ভেরিফায়েড

যেসব বায়ারের পেমেন্ট মেথড ভেরিফায়েড করা না, তাদের কাজে আবেদন করতে যাবেন না। কারণ কোন ফ্রীল্যান্সারকে

হায়ার করতে হলে অবশ্যই বায়ারের পেমেন্ট মেথড ভেরিফায়েড থাকতে হবে।

 

৩.প্রোফাইল

কোন একটা কাজ অনলাইন মার্কেটপ্লেসে আসার পর যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সেটিতে আবেদন করতে হবে। তবে আবেদন

করার সময় কাভার লেটারটি এমনভাবে লিখবেন, যেন বায়ার দেখে বুঝতে পারে যে আপনি কাজটির বর্ণনা পড়েছেন এবং তা

করতে পারবেন।

 

৪.একটিভিটি

আপনি যত বেশি অনলাইন মার্কেটপ্লেসে থাকবেন, ততই আপনার কাজ পাওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকবে। কারণ এমন

অনেক কাজ আছে যেগুলো মার্কেটপ্লেসে আসার সঙ্গে সঙ্গেই সম্পন্ন করে জমা দিতে হয়। যেমন- হঠাৎ করে কোন একটি

ওয়েবসাইটে সমস্যা হয়েছে তা ঠিক করে দেওয়া ইত্যাদি।

 

৫.রেস্পন্স

প্রথমদিকে বেশি সময় অনলাইনে থাকার চেষ্টা করুন, যাতে বায়ার আপনাকে যে কোন বার্তা পাঠালে সঙ্গে সঙ্গেই আপনি

তার জবাব দিতে পারেন। তাহলে বায়ার বুঝবে, আপনি কাজের প্রতি আন্তরিক।

 

৬.কাজের জন্য আবেদন

অনলাইন মার্কেটপ্লেসে দেখা যায়, প্রতি মিনিটেই সেখানে নতুন নতুন কাজ আসে সেগুলোতে আবেদন করুন। যদি দেখা

যায় ঐ কাজে কোন ফ্রীল্যান্সার এর ইন্টারভিউ নেওয়া হয়েছে, তবে সেসব কাজের আবেদন না করাই ভাল।

 

৭. এবিলিটি

যেসব কাজে বিভিন্ন শর্ত দেওয়া থাকে, আর সেগুলো যদি আপনি সঠিকভাবে পূরণ করতে না পারেন, তাহলে সেসব কাজে

আবেদন করবেন না।

 

৮.

যে কাজের জন্য আবেদন করবেন, তার নিচে দেখুন বায়ারের আগের কাজ গুলোর তালিকা দেওয়া আছে। সেখানে যদি

দেখেন, বায়ার তার আগের কাজ গুলো বেশি ডলার দিয়ে অন্য ফ্রীল্যান্সারকে দিয়ে করিয়ে ছিল, তাহলে আপনি বেশি ডলার

হারেও আবেদন করতে পারেন।

cpa marketing bangla blog

outsourcing in uttara

 

Share This Post

Post Comment